বিনোদন

অস্কারে ১০ বছর নিষিদ্ধ উইল স্মিথ

অস্কার অনুষ্ঠান চলাকালীন মঞ্চে উপস্থাপক ও কৌতুকাভিনেতা ক্রিস রককে চড় মারার ঘটনায় হলিউড অভিনেতা উইল স্মিথকে অস্কারসহ অ্যাকাডেমির সব অনুষ্ঠান থেকে ১০ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে।স্থানীয় সময় শুক্রবার অস্কার অ্যাকাডেমির বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে বিবিসি।

খবরে বলা হয়, মঞ্চে উপস্থাপককে চড় মারার ঘটনায় হলিউড অভিনেতা উইল স্মিথকে অস্কার গালা এবং অন্যান্য সব অ্যাকাডেমির ইভেন্ট থেকে ১০ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে।এর আগে ২ এপ্রিল এক বিবৃতিতে চড় মারার জন্য দুঃখজনক প্রকাশ করেন উইল স্মিথ। বিবৃতিতে তিনি বলেন, ৯৪তম অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডসে আমার কর্মকাণ্ড ছিল দুঃখজনক, বেদনাদায়ক এবং অমার্জনীয়।

তিনি বলেন, আমি যাদের আঘাত করেছি, তার তালিকা দীর্ঘ। এর মধ্যে রয়েছেন- ক্রিস রক, তার পরিবার, আমার অনেক প্রিয় মানুষ, বন্ধু, মঞ্চে উপস্থিত দর্শক এবং বাড়িতে বসা বিশ্বের অসংখ্য দর্শক। এজন্য অস্কার অ্যাকাডেমি থেকে পদত্যাগও করেছেন উইল স্মিথ।

গত ২৮ মার্চ যুক্তরাষ্ট্রের লস অ্যাঞ্জেলসের ডলবি থিয়েটারে জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে অস্কারের ৯৪তম আসরের অনুষ্ঠান হয়। এসময় উপস্থিত অতিথিদের নিয়ে ঠাট্টা করছিলেন অনুষ্ঠান সঞ্চালক ক্রিস রক। একে একে সবার কথা বলতে বলতে তিনি চলে যান উইল স্মিথের স্ত্রী জেডা স্মিথ প্রসঙ্গে। তখন ক্রিস বলেন, পরের ‘জি আই জেন’ ছবিতে অভিনয় করবেন জেডা।

‘জি আই জেন’ ছবিতে অভিনয় করেছিলেন ডেমি মুর। সেই ছবিতে তার মাথায় চুল ছিল না। ঘটনাচক্রে জেডার মাথাতেও চুল নেই। কিন্তু সেটি স্টাইলের কারণে নয়। তিনি অ্যালোপেশিয়ায় আক্রান্ত। সেই কারণেই তার চুল নেই।এ রসিকতায় তীব্র রেগে যান উইল স্মিথ। মঞ্চে উঠে তিনি চড় মারেন ক্রিস রককে। তখন সত্যিই স্মিথ রেগে গিয়েছিলেন। চড় মেরে নিজ আসনে এসে তিনি গালিগালাজ করে বলেন, তার স্ত্রীকে এসব থেকে দূরে রাখতে।

ওই ঘটনার এক ঘণ্টা পরেই কিং রিচার্ড চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেতার পুরস্কার জয় করেন উইল স্মিথ। ওই চলচ্চিত্রে তিনি টেনিস তারকা ভেনাস ও সেরেনা উইলিয়ামসের পিতার চরিত্রে অভিনয় করেন।২০১৬ সালেও একই রকম ঘটনা ঘটেছিল। সেসময়ও অস্কারের মঞ্চে স্মিথের স্ত্রী জাডাকে নিয়ে রসিকতা করেছিলেন ক্রিস রক।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
Close
Close